সংবাদ শিরোনাম
ব্রাহ্মণবাড়িয়া কারাগারে এক যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্ত কয়েদির মৃত্যু  ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় এক সপ্তাহে করোনায় আক্রান্ত ১২১৮।। মৃত্যু- ৯ ও সুস্থ ১৩৪ জন  কসবায় চাঞ্চল্যকর শিশু ধর্ষণ মামলার আসামি সুমনকে গ্রেফতার  ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নির্মাণাধীন ভবনের ছাদ থেকে পড়ে আইনজীবী নিহত নবীনগরে র‍্যাবের অভিযানে ইয়াবাসহ এক মাদক কারবারি আটক  করোনার সম্মুখ যোদ্ধা ডিসি হায়াত উদ-দৌলা খাঁন ও তার পরিবারের রোগমুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত  ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় পুকুরে পানিতে ডুবে দুই শিশুর করুণ মৃত্যু  বিজয়নগরে নিখোঁজের ৪দিন পর শিশুর মরদেহ উদ্ধার  ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আজ করোনায় আক্রান্ত- ১৩৭ ও মৃত্যু -২  আজ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় করোনায় আক্রান্ত- ৮৩ ও মৃত্যু -২ 
ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সালিশে বিরোধ নিষ্পত্তির পরইউপি সদস্যের উপর হামলা।। এক যুবককে কুপিয়ে জখম

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সালিশে বিরোধ নিষ্পত্তির পরইউপি সদস্যের উপর হামলা।। এক যুবককে কুপিয়ে জখম

স্টাফ রিপোর্টার//সময়নিউজবিডি 

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সালিশ সভায় বিরোধ নিষ্পত্তি হওয়ার ইউপি সদস্য মহসিন খন্দকার ও তার শ্যালকের উপর প্রতিপক্ষের লোকেরা হামলা করার অভিযোগ উঠেছে। হামলাকারীরা ইউপি সদস্যের শ্যালক জুনায়েদ খন্দকারকে কুপিয়ে জখম করে। এ সময় আরো ৪ যুবক আহত হয়। গত শুক্রবার সন্ধ্যা ৬ টায় শহরের জেল রোডে সুর সম্রাট দি আলাউদ্দিন সঙ্গীতাঙ্গনের সামনে এই ঘটনা ঘটে। আহত জুনায়েদ খন্দকারকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় প্রেরণ করা হয়। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। মহসিন খন্দকার সদর উপজেলার সুহিলপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৮ নং ওয়ার্ডের সদস্য।
স্থানীয় সূত্র ও পুলিশ জানায়, মহসিন খন্দকারের সাথে পৌর এলাকার পূর্ব মেড্ডার মৃত নিজাম উদ্দিনের ছেলে নাসিরের পূর্ব বিরোধ চলে আসছিলো। এই বিরোধের কারনে সম্প্রতি দুইপক্ষের মধ্যে একাধিকবার সংঘর্ষ হয়। বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য শুক্রবার বিকেলে জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা আল মামুন সরকারের উপস্থিতিতে এক সালিস অনুষ্ঠিত হয়। সালিশে বিশিষ্ট সালিশকারক ও জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি তাজ মোহাম্মদ ইয়াছিন, জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মুজিবুর রহমান বাবুল, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল কালাম ভূইয়া, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল বারী চৌধুরী মন্টু ও সুহিলপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আজাদ হোসেন হাজারী আঙ্গুর প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
সালিশে উভয়পক্ষের বিরোধ নিষ্পত্তি করে ভবিষ্যতে উভয়পক্ষকে স্বাভাবিকভাবে চলাফেরা করার জন্য বলা হয়। কিন্তু সালিশসভার পর পরই মহসিন খন্দকারসহ তার লোকজন আলাউদ্দিন সঙ্গীতাঙ্গন থেকে বের হয়ে জেলরোডে আসা মাত্রই প্রতিপক্ষের লোকেরা মহসিন খন্দকার ও তার লোকজনের উপর অতর্কিতভাবে হামলা করে। হামলাকারীরা জুনায়েদ খন্দকারকে কুপিয়ে জখম করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। আহত জুনায়েদ খন্দকারকে প্রথমে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে ও পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় প্রেরণ করা হয়।
এ ব্যাপারে ইউপি সদস্য মহসিন খন্দকার বলেন, গত ২৩ ফেব্রুয়ারি পূর্ব মেড্ডার মৃত নিজাম উদ্দিনের ছেলে নাসিরের সাথে ঘাটুরা গ্রামে তার মার্কেটের সামনে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় নাসিরের লোকজন তার বাড়িতে গিয়ে তার শ্যালক জুনায়েদ খন্দকারকে মারধোর করে ও তার বাড়ির গেইট ভাংচুর করে। এ ঘটনায় জুনায়েদের বোন শাম্মী আক্তার বাদী হয়ে সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। গত শুক্রবার সন্ধ্যায় আলাউদ্দিন সঙ্গীতাঙ্গনে সালিশের মাধ্যমে বিষয়টি মিমাংসা করা হয়। সালিশ সভার পরই প্রতিপক্ষের লোকজন আমার উপর হামলা করে ও আমার শ্যালক জুনায়েদকে কুপিয়ে আহত করে।
এ ব্যাপারে সালিশে উপস্থিত থাকা সুহিলপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ আজাদ হোসেন হাজারী আঙ্গুর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, সালিশে সমঝোতা করার পর হামলার ঘটনা অত্যন্ত গর্হিত অপরাধ । আমি এই ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই।
এ ব্যাপারে সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুর রহিম বলেন, এ ঘটনায় এখনো থানায় কোন মামলা হয়নি। মামলা দায়ের করা হলে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
ইনাম/সময়নিউজবিডি টুয়েন্টিফোর। 

সংবাদটি পছন্দ হলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Somoynewsbd24.Com