সংবাদ শিরোনাম
ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি অনার্স কলেজের সাবেক জিএস আশরাফুল ইমাম রানা’র ইন্তেকাল আশুগঞ্জে এলজিইডির কার্য-সহকারীকে ইউপি চেয়ারম্যানের মারধর, থানায় মামলা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় রিকসা ও ভ্যান শ্রমিক ইউনিয়নের সংবাদ সম্মেলন।। দাবি মানা না হলে হরতাল অবরোধ অবশেষে মায়ের কোলে ঠাঁই পেয়েছে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় কুড়িয়ে পাওয়া শিশুটি নবীনগরে এক অজ্ঞাত মরদেহ উদ্ধার পৌরসভার মেয়র পদে নির্বাচন; ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় দলীয় মনোনয়ন ফরম জমা দিলেন আ’লীগের ৩২ প্রার্থী ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ১৪ জুয়ারি-মাদকসেবী গ্রেপ্তার নাসিরনগরে রাতের আধারে প্রধানমন্ত্রীর গৃহহীন প্রকল্প দখল।। ৬ জনের নামে মামলা।। গ্রেফতার-৪ রেললাইনের পাশ থেকে গলাকাটা অজ্ঞাত মরদেহের পরিচয় মিলেছ।। সে অটো চালক অসুস্থ মোহাম্মদ হানিফের শয্যাপাশে পৌর মেয়র নায়ার কবির
বিএনপির আমলে দেশে আইনের শাসন ছিল না ; আইনমন্ত্রী আনিসুল হক

বিএনপির আমলে দেশে আইনের শাসন ছিল না ; আইনমন্ত্রী আনিসুল হক

কসবা সংবাদদাতা, সময়নিউজবিডি২৪ 

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের আইন বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী অ্যাডভোকেট আনিসুল হক এমপি বলেছেন, বিএনপির আমলে দেশে আইনের শাসন ছিল না। তারা পকেটের মধ্যে কোর্টকে রাখতো। সেই আমল বদলে গেছে। কিন্তু তাদের চিন্তাধারা বদলায়নি। তাই তারা এসব আজে-বাজে কথা বলেন।  
শুক্রবার (০৫ জুলাই) দুপুরে ব্রাহ্মণাবড়িয়ার কসবা উপজেলা পরিষদের নবনির্মিত ভবনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।        

আইনমন্ত্রী আরো বলেন, পাবনার ঈশ্বরদীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ট্রেনবহরে হামলার ঘটনায় আদালতের দেয়া রায়কে ফরমায়েশি বলে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সম্প্রতি গণমাধ্যমে যে অভিযোগ করেছেন তা সঠিক নয়। তিনি বলেন, হামলার ঘটনা ঘটেছে ১৯৯৪ সালে আর তদন্ত শুরু হয়েছিল বিএনপির আমলে ১৯৯৫ সালে। মামলার বিচার কাজ শুরু হয়েছে ১৯৯৮ সালে। ২২ বছর পর এ মামলার রায় হয়েছে। সাক্ষ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে বিচারিক আদালত রায় দিয়েছেন। এখানে ফরমায়েশি রায়ের প্রশ্ন ওঠে কী করে সেটা আমি বুঝি না।
খালেদা জিয়া প্রসঙ্গে আইনমন্ত্রী বলেন, খালোদা জিয়ার অসুস্থতা যতটুকু আছে তার থেকেও যেন বেশি সেবা করা যায় সেজন্যই হাসপাতালে রাখা হয়েছে। এমন কোনো ব্যক্তি নেই যার সাজা হয়েছে এবং তাকে প্রতিপালনের জন্য বিনা দোষে কারাগার বরণ করছে। সেই ফাতেমাকেও খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেয়া হয়েছে।

এ সময় অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক হায়াত-উদ-দৌলা খান, সাবেক সাংসদ অ্যাডভোকেট শাহ আলম, কসবা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট রাশেদুল কায়সার জীবন সহ স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।


ইনামসময়নিউজবিডি টুুুয়েন্টিফোর। 

সংবাদটি পছন্দ হলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Somoynewsbd24.Com