সংবাদ শিরোনাম
পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে বিভিন্ন মহলের ঈদ শুভেচ্ছা  ব্রাহ্মণবাড়িয়া বাতিঘর এর উদ্যোগে দেড়শতাধিক অসহায় পরিবারের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষ্যে পৌর মেয়র নায়ার কবিরের ঈদ শুভেচ্ছা নাসিরনগরে পাঁচশত অসহায় পরিবারের মধ্যে ঈদ সামগ্রী বিতরন  হেফাজতের তাণ্ডব – ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আরো ৮ জন গ্রেপ্তার।। এ পর্যন্ত গ্রেফতার -৪৬৫ বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল ও সরকারি স্থাপনায় তাণ্ডব ঠেকাতে না পারায় আমি লজ্জিত; মোকতাদির চৌধুরী এমপি দুই শতাধিক অসহায় হতদরিদ্র ও কর্মহীন মানুষের মাঝে মোকতাদির চৌধুরী এমপি’র ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ হেফাজতের তাণ্ডব- ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আরো ৩ জন গ্রেফতার।। এ পর্যন্ত গ্রেফতার -৪৫৭ ভৈরবে র‍্যাবের পৃথক দুটি অভিযানে চার মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার  কমলগঞ্জ পৌরসভায় ইমাম মুয়াজ্জিনদের উৎসব ভাতা প্রদান
নিখোঁজের ১৪ দিন পরও সন্ধান মিলেনি মুফতি মিজানুর রহমানের।। প্রধানমন্ত্রী হস্তক্ষেপ কামনা করে পরিবারের সংবাদ সম্মেলন

নিখোঁজের ১৪ দিন পরও সন্ধান মিলেনি মুফতি মিজানুর রহমানের।। প্রধানমন্ত্রী হস্তক্ষেপ কামনা করে পরিবারের সংবাদ সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টার//সময়নিউজবিডি 
চট্টগ্রামের হাটহাজারী থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ফেরার পথে  নিখেঁাজ হওয়ার ১৪ দিন পরেও সন্ধ্যান মেলেনি ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মুফতী মাওলানা মিজানুর রহমান কাসেমীর। নিখেঁাজ  মিজানুর রহমান ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আশুগঞ্জ উপজেলার শরীফপুর ইউনিয়নের কান্দাপাড়া গ্রামের আবদুল ওয়াহাবের ছেলে।

এদিকে তার সন্ধান পেতে গতকাল সোমবার দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে নিখেঁাজের পরিবার।
সংবাদ সম্মেলনে মুফতী মিজানুর রহমানের ভায়রা ভাই এস.এস.এম সায়েম ওরফে সোহেল লিখিত বক্তব্যে বলেন, মুফতি মিজানুর রহমান ভারতের দেওবন্দ মাদ্রাসা থেকে মুফতী এবং চট্টগ্রামের হাটহাজারী মাদ্রাসা থেকে মোফাচ্ছের কোর্স সম্পন্ন করেছেন। তিনি হাটহাজারী চারিয়া কালা বাদশা জামে মসজিদের খতিব ছিলেন।
গত ১ সেপ্টেম্বর  দুপুর আড়াইটার সময় তিনি  স্ত্রীকে মোবাইল ফোনে জানান, তিনি বাড়িতে আসছেন। এরপর পৌনে ৫ টার দিকে শওকত নামে এক বন্ধুকে মিজানুর রহমান ফোন করে জানান তাকে ৪ জন অপরিচিত লোক আটক করে অবান্তর কথাবার্তা বলছে। বিষয়টি শওকত মিজানুর রহমানের স্ত্রীকে জানান। পরে মিজানুর রহমানের স্ত্রী স্বামীকে ফোন করে ফোনটি বন্ধ পান।
এ ঘটনায় পরদিন হাটহাজারী থানায় মিজানুর রহমানের আরেক বন্ধু মোঃ নাছির উদ্দিন একটি সাধারন ডায়েরী করেন। থানা পুলিশ তার মোবাইল ট্র্যাকিং করে দেখতে পান সিলেটের জকিগঞ্জের রতনগঞ্জ বাজার এলাকায় তার অবস্থান। পরে সেখানকার থানা পুলিশ সম্ভাব্য কয়েকটি স্পটে তল্লাশী করে তার সন্ধান পায়নি। 
পরে পরিবারের পক্ষ থেকে সিলেট ডিবি অফিস ও র‍্যাব-১৪-এর ভৈরব ক্যাম্পকে অবহিত করা হয়। লিখিত বক্তব্যে তিনি নিখোঁজ মুফতির সন্ধান পেতে  প্রধানমন্ত্রী এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন।
সংবাদ সম্মেলনে মিজানুর রহমানের বৃদ্ধ পিতা আব্দুল ওয়াহাব, শ্বশুর কাজী এরশাদুল হক, হাফেজ মোঃ ইদ্রিস এবং মুফতি এনামুল হাসান উপস্থিত ছিলেন।  
ইনাম/সময়নিউজবিডি টুয়েন্টিফোর। 

সংবাদটি পছন্দ হলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Somoynewsbd24.Com